তাহিরপুরে সংঘর্ষ : ২৮ জনের বিরুদ্ধে মামলা

dial dial

sylhet

প্রকাশিত: ৬:২৭ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১২, ২০২০

ডায়ালসিলেট ডেস্ক:সুনামগঞ্জের তাহিরপুরে আধিপত্য বিস্তার, পূর্বশত্রুতার জের ও জমি দখলকে কেন্দ্র করে দুই দফায় সংঘর্ষের ঘটনায় ২৮ জনকে আসামি করে মামলা হয়েছে। মল্লিক পক্ষের ধন মিয়া বাদী হয়ে মঙ্গলবার (১১ ফেব্রুয়ারি) রাতে এ মামলাটি দায়ের করেন। সংঘর্ষের ঘটনায় এখন পর্যন্ত ১৩ জনকে আটক করা হয়েছে।

গত সোমবার (১০ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে এবং পরদিন মঙ্গলবার (১১ ফেব্রুয়ারি) ভোরে উপজেলার শ্রীপুর (উত্তর) ইউনিয়নের দুধের আউটা গ্রামে জমির সীমানা নির্ধারণ ও পূর্বশত্রুতার জেরে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় এসএসসি পরীক্ষার্থীসহ দুইপক্ষের ২০ জন আহত হন। তাদের মধ্যে আশঙ্কাজনক অবস্থায় ৮ জনকে সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

প্রসঙ্গত, উপজেলার শ্রীপুর (উত্তর) ইউনিয়নের দুধের আউটা গ্রামের লেবু মিয়ার ছেলে মল্লিক মিয়া ও একই গ্রামের পেয়ার আলী মড়লের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দ্বন্দ্ব চলে আসছিল। এরই ধারাবাহিকতায় গত সোমবার দুপুরে মল্লিক মিয়া তার পৈতৃক জমিতে সীমানা নির্ধারণ করে খুঁটি পুঁততে গেলে প্রতিপক্ষ পেয়ার আলীর লোকজন তাতে বাধা দেয়। একপর্যায়ে দুইপক্ষের লোকজনের মধ্যে কথা কাটাকাটির জের ধরে দুইপক্ষের লোকজনই দেশীয় অস্ত্র নিয়ে প্রায় ঘন্টাব্যাপী সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এ সংঘর্ষে অন্তত ৫ জন গুরুতর আহত হন। পরবর্তীতে দ্বিতীয় দফায় মঙ্গলবার ভোরে উভয়পক্ষের লোকজন আবারো রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে লিপ্ত হলে অন্তত ১৫ জন আহত হন।

তাহিরপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আতিকুর রহমান বলেন, ‘এ ঘটনায় একপক্ষের ধন মিয়া বাদী হয়ে থানায় ২৮ জনের বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করলেও অপরপক্ষ থেকে এখনও থানায় কোনো অভিযোগ দায়ের করা হয়নি। সংঘর্ষের ঘটনায় এ পর্যন্ত ১৩ জনকে আটক করা হয়েছে। পরিস্থিতি এখন শান্ত। তবে এলাকায় পুলিশি টইল অব্যাহত রয়েছে।’

0Shares