ওসমানীনগরে বাস চাপায় শিশুসহ নিহত ৪

প্রকাশিত: ১১:৪৪ অপরাহ্ণ, আগস্ট ১৩, ২০২০

ডায়াল সিলেট ডেস্ক :: সিলেট-ঢাকা মহাসড়কের ওসমানীনগর এলাকায় দ্রুতগামী যাত্রীবাহী বাসের চাপায় সিএসজি চালিত অটো রিকশার চালকসহ চার যাত্রী নিহত হয়েছেন। এ ঘটনার গুরুতর আহত হয়েছেন আরও তিনজন।

বৃহস্পতিবার (১৩ আগস্ট) রাত আমুনামিক আটটার দিকে ওসমানীনগর উপজেলার ভাঙ্গা নামক স্থানে এ হতাহতের ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিস ও পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে হতাহতদের উদ্ধার করে।

নিহতরা হলেন- ওসমানীনগর উপজেলার মোবারকপুর গ্রামের আলাউদ্দিনের ছেলে অটোরিকশাচালক জুনেদ মিয়া (২৮), একই উপজেলার গোয়ালাবাজারের ব্রাহ্মণগ্রামের ফজলে মিয়ার স্ত্রী হামিদা বেগম (৩৫), তার মেয়ে আরিফা বেগম (১২) ও হামিদার বোনের মেয়ে কারিমা বেগম (৩)।

প্রত্যক্ষদর্শীর বরাত দিয়ে পুলিশ জানায়, ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা সিলেটগামী মামুন এন্টারপ্রাইজের একটি যাত্রীবাহী বাস শেরপুরগামী সিএসজি চালিত অটোরিকশাকে চাপা দিলে ঘটনাস্থলে অটোরিকশার বেশ কয়েকজন যাত্রী হতাহতের ঘটনা ঘটে। পরে তাদেরকে উদ্ধার করলে সেখানেই দুই জনের মৃত্যু হয়। বাকীদের সিলেটের এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য প্রেরণ করা হয়।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে ওসমানীনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শ্যামল বণিক জানান, একটি বাসের সঙ্গে সিএনজিচালিত একটি অটোরিকশার মুখোমুখি সংঘর্ষে ঘটনাস্থলেই একজনের মৃত্যু হয়। পরে স্থানীয় ব্যক্তিদের সহযোগিতায় হতাহতদের উদ্ধার করে সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে হাসপাতালে শিশুসহ আরও তিনজনের মৃত্যু হয়।

 

এছাড়া সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ উপ পরিদর্শক (এসআই) ফারুক আহমদ বলেন, বর্তমানে হাসপাতালে তিনজন গুরুতর আহত অবস্থায় চিকিৎসা নিচ্ছেন। তাদের মধ্যে দুইজন শিশু ও একজন নারী রয়েছেন। তারা হলেন, হামিদা বেগম (২.৫), আফসানা (৭) ও খালেদা বেগম (৩০)।

এদের মধ্যে আফসানার বাড়ি মৌলভীবাজারের মধ্যনগর এলাকায়। সে সিলেটের গোয়ালাবাজার উপজেলার ব্রাহ্মণগ্রামে তার খালার বাড়িতে বেড়াতে এসেছিলো বলে জানান পুলিশের এ কর্মকর্তা।

0Shares