মৌলভীবাজারে ৫ বেকারিকে ৬ লাখ ৭০ হাজার টাকা জরিমানা

প্রকাশিত: ১:০২ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ৯, ২০২০

ডায়ালসিলেট ডেস্কঃঃ মাটিতে রাখা নোংরা ট্রেতে রয়েছে ব্রেড, বিস্কুটসহ বেকারি সামগ্রী। এর আশেপাশে ঘুরছে বিড়াল। হয়তো সুযোগ মত সেও মুখে তুলে নিচ্ছে। খাবারের ওপর ঘুরছে মশা-মাছিসহ নানা কীট পতঙ্গ। এসব আবার মানুষের পেটে যাচ্ছে।

এমন অবস্থা ধরা পড়েছে র‌্যাব হেডকোয়ার্টারের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আক্তারুজ্জামানের চোখে। র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযানে এসব অভিযোগে মৌলভীবাজারে ৫টি বেকারিকে ৬ লাখ ৭০ হাজার টাকা জরিমানা কর হয়েছে।

মঙ্গলবার (৮ ডিসেম্বর) দুপুরে মৌলভীবাজার শহরের বিভিন্ন বেকারিতে অভিযান পরিচালনা করেন র‌্যাব হেডকোয়ার্টারের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আক্তারুজ্জামান। এসময় র‌্যাব-৯ শ্রীমঙ্গল ক্যাম্পের অধিনায়ক আহমদ নোমান জাকিরসহ র‌্যাবের অন্যান্য সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালত সূত্রে জানা গেছে, অভিযানকালে শহরের জুগিডর এলাকার সম্রাট বেকারিতে অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে খাদ্য সামগ্রী তৈরি করতে দেখা গেছে। এই অপরাধে প্রতিষ্ঠানকে ১ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়। পরে শহরের বড়হাট এলাকায় ন্যাশনাল বেকারিতে গিয়ে দেখা যায় নোংরা পরিবেশে মেঝেতে তৈরী খাবার রাখা। এই অপরাধে প্রতিষ্ঠানটিকেও ১ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়। পশ্চিমবাজার এলাকার আল মদিনা বেকারির তৈরী কেক, ব্রেডে মাছি ও তেলাপোকা পাওয়া প্রতিষ্ঠানকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

শহরের শমশেরনগর রোডের আনন্দ বেকারিতে রং দিয়ে খাবার তৈরি করা হচ্ছে দীর্ঘ দিন ধরে। এছাড়া পুরনো বিস্কুটের গুঁড়া দিয়ে পুনরায় বিস্কিট তৈরী করা হয়। সরেজমিনে ভ্রাম্যমাণ আদালতের কাছে বিষটি ধরা পড়ে। প্রতিষ্ঠানটিকেও ১ লাখ ২০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

সবশেষ শমশেরনগর রোডের স্বাদ এন্ড কোং, এর কারখানায় অভিযান চালানো হয়। সেখানে খাদ্যে রঙ মেশানো এবং অসাস্থকর পরিবেশে খাবার সামগ্রী তৈরির দায়ে ৩ লাখ টাকা জরিমানা করেন র‌্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট।

অভিযান শেষে র‌্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আক্তারুজ্জামান জানান, অভিযান পরিচালনার সময় খাদ্য দ্রব্যে ভেজাল, বিভিন্ন ক্ষতিকারক রঙ এবং অসাস্থ্যকর পরিবেশ পাওয়ার প্রেক্ষিতে এসব প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা করা হয়। নিরাপদ খাদ্য নিশ্চিত করতে এ ধরণের অভিযান সারা দেশে চলমান থাকবে।

0Shares