চেয়ারম্যান প্রার্থীকে কোপালেন সাবেক মেম্বার

dial dial

sylhet

প্রকাশিত: ৮:৫৬ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ৬, ২০২১

ডায়ালসিলেট ডেস্ক::সুনামগঞ্জের ধর্মপাশা উপজেলার সুখাইড় গ্রামের চেয়ারম্যান প্রার্থীকে কুপিয়ে জখম করার অভিযোগ উঠেছে সাবেক মেম্বারের বিরুদ্ধে। চেয়ারম্যানের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানা গেছে। বর্তমানে তিনি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

সোমবার (৪ জানুয়ারি) রাতে ধরমপাশা উপজেলার সুখাইড় বাজারে এই মারধরের ঘটনা ঘটে।

আহত চেয়ারম্যান প্রার্থীর নাম সুমন চন্দ্র সরকার (৩৪)। মারধরের অভিযোগ উঠেছে সাবেক মেম্বার লিটন মিয়ার বিরুদ্ধে।

প্রত্যক্ষদর্শী ও দলীয় সূত্রে জানা যায়, সুখাইড় ইউনিয়নের ৩৪টি গ্রামের মতামত নিয়ে আসন্ন নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী হয়েছেন সুখাইড় গ্রামের বাসিন্দা নব কুমার সরকারের ছেলে সুমন চন্দ্র সরকার। চেয়ারম্যান প্রার্থী হওয়ার পর থেকে একের পর এক নির্বাচনী প্রচারণায় বাধা দিয়ে আসছেন গ্রামের সাবেক মেম্বার লিটন মিয়া। সোমবার রাতে নির্বাচনী প্রতারণার অংশ হিসেবে সুখাইড় বাজারে আসেন চেয়ারম্যান প্রার্থী সুমন চন্দ্র সরকার। এসে দেখেন তার সমর্থক জুটন দাসকে বেধড়ক মারধর করছেন গ্রামের সাবেক মেম্বার লিটন, এরশাদ, লিটন, আকাশ ও তাহের মিয়া।

তিনি তাদের মারধর করতে নিষেধ করলে তারা ধারালো অস্ত্র দিয়ে চেয়ারম্যান প্রার্থীর মাথায় আঘাত করেন। এতে তিনি মাটিতে লুটিয়ে পড়েন। পরে আশপাশের লোকজন দুজনকে উদ্ধার করে সুনামগঞ্জ সদর হাসপাতালে নিয়ে যান।

আহত চেয়ারম্যান প্রার্থীর ভাতিজা পুলক চন্দ্র দাস বলেন, ‘আমার চাচাকে পরিকল্পিতভাবে হত্যার চেষ্টা করা হয়েছে। চাচার মাথায় ১৮টি সেলাই দেয়া হয়েছে। তার অবস্থা আশঙ্কাজনক।’

0Shares