বাবাকে মারতে গিয়েছিলেন কঙ্গনা

dial dial

sylhet

প্রকাশিত: ১:০৮ অপরাহ্ণ, মার্চ ২৪, ২০২১

বিনোদন ডেস্ক ::

স্পষ্টভাষী এবং ঠোঁটকাটা হিসেবে সকলের কাছে পরিচিত অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাওয়াত। বলি কুইন পরিস্কার জানিয়েছেন, কিশোরী বয়স থেকে তিনি এই রকম। নিজেকে বদলাতে পারবেন না কখনো। এমনকি বাড়ির সকলের সঙ্গেও অভিনেত্রী এমনই।

পাঙ্গা অভিনেত্রী একবার জানিয়েছিলেন, স্কুল যেতে মানা করায় তাঁর বাবা অমরদ্বীপ রানাওয়াত তাঁকে চড় মারার জন্য উদ্যত হয়েছিল। সেই সময় বাবার সঙ্গে প্রচণ্ড ঝগড়া করেছিলেন তিনি। অভিনেত্রীর কথায়, তাঁদের সম্পর্ক সেই দিনই শেষ হয়ে গিয়েছিল যেদিন তাঁর বাবা তাঁর ওপর হাত তোলার চেষ্টা করেছিল। কঙ্গনার বক্তব্য ছিল, ‘যদি তুমি আমাকে চড় মারো, তবে আমিও তোমাকে চড় মারব’। এখন কঙ্গনার জীবনে অনেকটাই বদল এসেছে। একসময় তাঁর পরিবার তাঁকে অবাঞ্ছিত শিশু বলে অবজ্ঞা করতেন। এখন চার বার আন্তর্জাতিক স্তরে পুরস্কার জিতে পুরো পরিবারের মুখ উজ্জ্বল করেছেন অভিনেত্রী কঙ্গনা।

কঙ্গনা জানিয়েছেন, পরিবারের প্রথম সন্তান হওয়ার জন্য তাঁর দিদি রাঙ্গোলি চান্দেলের জন্মর সময় গোটা পরিবার উদযাপন করেছিলেন। তাঁর আগে তাঁদের দশ দিনের পুত্র সন্তান মারা গিয়েছিল। যাই হোক, কঙ্গনা বাড়ির দ্বিতীয় কন্যা সন্তান হওয়ার দরুন, সেটা কোনো উদযাপনে পরিণত হয়নি। পিটিআইকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে অভিনেত্রী জানিয়েছিলেন, ‘আমি যখন জন্মেছিলাম, আমার বাবা-মা, বিশেষ করে আমার মা, কোনো মতেই মেনে নিতে পারছিলেন না দ্বিতীয় সন্তানও মেয়ে হয়েছে। এই গল্পগুলো আমি বেশি করে জানি কারণ, প্রত্যেকবার বাড়িতে যখন কোনো অনুষ্ঠান হত অথবা সবাই এক জায়গায় সামিল হত, এই গল্পটাই বারবার বলত, যে আমি পরিবারের অবাঞ্ছিত মেয়ে’।

 

0Shares