বিনা কারণে রাস্তায় বের হলে আইনি ব্যবস্থা : এসএমপি কমিশনার

প্রকাশিত: ১১:২৬ অপরাহ্ণ, জুন ৩০, ২০২১

বিনা কারণে রাস্তায় বের হলে আইনি ব্যবস্থা : এসএমপি কমিশনার

ডায়ালসিলেট ডেস্ক :: বিনা কারণে ঘর থেকে বাইরে বের হলে আইনি ব্যবস্থা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে জানিয়েছেন সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশ (এসএমপি) কমিশনার মো. নিশারুল আরিফ।

সিলেট এসএমপির এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে (১ জুলাই) বৃহস্পতিবার থেকে সারাদেশে কঠোর বিধিনিষেধ জারি করেছে সরকার।

বিধিনিষেধে বলা হয়েছে, অতি জরুরি প্রয়োজন ছাড়া কেউ ঘরের বাইরে বের হতে পারবেন না। বের হলে তার বিরুদ্ধে কঠোর আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে। বুধবার (৩০ জুন) দুপুরে মন্ত্রীপরিষদ বিভাগের মাঠ প্রশাসন সমন্বয় অধিশাখা থেকে এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে।

প্রজ্ঞাপনে বৃহস্পতিবার সকাল ৬টা থেকে ৭ জুলাই মধ্যরাত পর্যন্ত এ বিধিনিষেধ কার্যকর থাকবে।

এদিকে সিলেট নগরীতে বিনা কারণে কেউ ঘর থেকে বাইরে বের হলে এবং বিধিনিষেধ ভঙ্গ বা অমান্য করলে তাকে কঠোর আইনি ঝামেলায় পড়তে হবে বলে জানিয়েছেন সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের কমিশনার মো. নিশারুল আরিফ।

নগরীতে কঠোর বিধিনিষেধ চলাকালে কি করণীয় বা কি করা যাবেনা সে প্রসঙ্গে এসএমপি কমিশনার বলেন, এবার রিকশা ব্যবহার করা গেলেও কোনো ইঞ্জিনচালিত যানবাহন ব্যবহার করা যাবেনা। আর তা ব্যবহার করলে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এছাড়া বিভিন্ন স্থানে জেলা ম্যাজিস্ট্রেট সচেতনতা বৃদ্ধির এবং আইন মেনে চলার লক্ষ্যে মাঠে পর্যায়ে কাজ করবেন। তবে সরকার জরুরি সেবা বলতে যা বুঝিয়েছে এর বাইরে কোনো যানবাহন চলতে দেয়া হবে না। নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যসহ জরুরি সেবার প্রয়োজন হলে সেগুলো নিতে পারবেন।

সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের কমিশনার এ ব্যাপারে সিলেটবাসীর সকলের আন্তরিক সহযোগিতা প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন।

কথা বলেন। এসএমপি কমিশনার বলেন, এবার রিকশা ব্যবহার করা গেলেও কোনো ইঞ্জিনচালিত যানবাহন ব্যবহার করা যাবেনা। আর তা ব্যবহার করলে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এছাড়া বিভিন্ন স্থানে জেলা ম্যাজিস্ট্রেট সচেতনতা বৃদ্ধির এবং আইন মেনে চলার লক্ষ্যে মাঠে পর্যায়ে কাজ করবেন। তবে সরকার জরুরি সেবা বলতে যা বুঝিয়েছে এর বাইরে কোনো যানবাহন চলতে দেয়া হবেনা।  নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যসহ জরুরি সেবার প্রয়োজন হলে সেগুলো নিতে পারবেন।

সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের কমিশনার এ ব্যাপারে সিলেটবাসীর সকলের আন্তরিক সহযোগীতার প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন।

0Shares