দুদিনে ১১১৫ অভিবাসীর ইংলিশ চ্যানেল অতিক্রম

প্রকাশিত: ১০:৫১ পূর্বাহ্ণ, অক্টোবর ১১, ২০২১

দুদিনে ১১১৫ অভিবাসীর ইংলিশ চ্যানেল অতিক্রম

ডায়ালসিলেট ডেস্ক::বৃটেনে অভিবাসীর ঢল কোনভাবে থামানো যাচ্ছে না। মানুষের জীবনের কোন তোয়াক্কা না করে ছোট নৌকায় বা লরিতে যে যেভাবে পারছে রানীর দেশে ঢুকে পড়ছে। সদ্য জন্ম নেয়া শিশু থেকে শুরু করে বৃদ্ধ পর্যন্ত রয়েছেন এই দলে। অবৈধ পথে বৃটেনে প্রবেশ ঠেকাতে বৈধতা না পাওয়ার আইন করা হয়েছে। শুধু এখানেই শেষ নয়, গত জুলাই মাসে ফ্রান্সের সাথে ৫৪ মিলিয়ন পাউন্ডের একটি চুক্তি করা হয়, চুক্তির অধীনে ফ্রান্স তার সৈকতে টহলরত পুলিশের সংখ্যা দ্বিগুণ করবে যাতে করে বৃটেনে অভিবাসী প্রবেশ বন্ধ করা যায়। কিন্তু সকল প্রচেষ্টা ব্যর্থ করে গত দুদিনে ১১১৫ অভিবাসী ইংলিশ চ্যানেল অতিক্রম করে। এর মধ্যে শুক্রবার ৩২টি নৌকায় ৬২৪ জন অভিবাসী প্রবেশ করলেও আরো ৩০০ জনকে ফিরিয়ে দিতে পেরেছে ফ্রান্স। শনিবার ১৭টি নৌকায় ৪৯১ জন ঢুকতে পেরেছে এর মধ্যে ১১৪ জনকে ফ্রান্স পুলিশ ফিরিয়ে দিতে পেরেছে।

এদিকে সবচেয়ে বেশি অভিবাসী ঢুকেছে গত সেপ্টেম্বর মাসে।যার সংখ্যা ৩,৮৭৯ জন। হোম অফিসের তথ্যমতে বিশ্বের অন্যতম বিপজ্জনক ইংলিশ চ্যানেল পাড়ি দিয়ে গত বছর (২০২০) দেশটিতে প্রবেশ করে মাত্র ৮,৪৬০ জন। কিন্তু চলতি বছর এ পর্যন্ত ১৮ হাজারের উপরে মানুষ ফ্রান্স থেকে ঢুকতে পেরেছে। এমন পরিস্থিতিতে ক্ষেপেছেন দেশটির স্বরাষ্ট্র সচিব প্রীতি প্যাটেল। সম্প্রতি তিনি হুমকি দিয়ে বলেন, যদি অভিবাসী প্রবেশ ঠেকানো না হয় তাহলে ফ্রান্সের সাথে ৫৪ মিলিয়ন পাউন্ডের তহবিল বন্ধ করে দেয়া হবে। তবে ফ্রান্স দাবি করেছে, অভিবাসী মোকাবিলায় প্রতিশ্রুত ৫৪ মিলিয়ন দিতে ব্যর্থ হয়েছে যুক্তরাজ্য। ফরাসি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জেরান্ড ডারমানিন বৃটেনকে তার প্রতিশ্রুতি দেয়া টাকা পরিশোধ করার আহ্বান জানান। এদিকে, স্কাই নিউজ জানিয়েছে, রোববারও একটি নৌকা কেন্ট উপকূলে পৌঁছেছে।

ডায়ালসিলেটেএম/

0Shares