খেলা দেখাবো, বাস্তবে দেখাবো চট্টগ্রামের পলো গ্রাউন্ডে – ওবায়দুল কাদের

প্রকাশিত: ৬:৪৩ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ২৯, ২০২২

খেলা দেখাবো, বাস্তবে দেখাবো চট্টগ্রামের পলো গ্রাউন্ডে – ওবায়দুল কাদের

 

 

 

ডায়ালসিলেট ডেস্ক রিপোর্ট ::  খেলা হবে। আন্দোলনে খেলা হবে। নির্বাচনে খেলা হবে। ভোট চুরির বিরুদ্ধে খেলা হবে। ভোট জালিয়াতির বিরুদ্ধে, দুর্নীতির বিরুদ্ধে খেলা হবে। যারা মানুষের ভাগ্য নিয়ে ছিনিমিনি খেলে তাদের বিরুদ্ধে খেলা হবে। টাকা উড়ে আকাশে, ঢাকা উড়ে বাতাসে। টাকা উড়ে মহল্লায়। টাকার খেলা আর হবে না। খেলা হবে জনতার।

 

 

রংপুরে তিন দিন আগে মানুষ এনে মাঠে শুইয়ে রেখে কতো রঙ্গের খেলা দেখিয়েছে বিএনপি। কতো লোক হয়েছে ৫০ হাজার। খুলনায় কতো হয়েছে? ৩০ হাজার। আজকের আওয়ামী লীগের ঢাকা জেলা সম্মেলনের ছবি দেখুন ফখরুল সাহেব। দেখুন কতো মানুষ এসেছে। আমরা খেলা দেখাবো চট্টগ্রামের পলো গ্রাউন্ডে। ১০ লাখ লোক সেদিন দেখাবো। আপনারা ১০ লাখ মুখে বলবেন আমরা বাস্তবে দেখাবো বলে মন্তব্য করোন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

শনিবার রাজধানীর আগারগাঁওয়ে পুরাতন বাণিজ্যমেলা মাঠে ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

 

 

 

 

প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি বলেন, যাদের হাতে মুক্তিযুদ্ধের বাংলাদেশ নিরাপদ নয় তাদের সঙ্গে খেলা হবে। তিনি বলেন, বাংলাদেশের ৪৭ বছরের ইতিহাসে সবচেয়ে সৎ নেতা শেখ হাসিনা। সবচেয়ে দক্ষ প্রশাসকের নাম শেখ হাসিনা। সবচেয়ে সফল কূটনীতিকের নাম শেখ হাসিনা। সবচেয়ে জনপ্রিয় নেতার নাম শেখ হাসিনা। সবচেয়ে সাহসী নেতার নাম শেখ হাসিনা। মৃত্যুর মিছিলে দাঁড়িয়ে তিনি জীবনের জয় গান গান। ধ্বংস্তুপে দাঁড়িয়ে তিনি সৃষ্টির জয়গান গান।

 

 

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, বিএনপি’র সময় রিজার্ভ চার বিলিয়ন ডলারও ছিল না। শেখ হাসিনা ৪৮ বিলিয়ন ডলারে নিয়ে যান। বৈশ্বিক সংকটে এখন ৩৬ বিলিয়ন ডলারে এসেছে। বিএনপি এদেশের রিজার্ভ গিলে খেয়েছে। স্বাধীনতার আদর্শ গিলে ফেলেছে। এবার ক্ষমতায় গেলে দেশসুদ্ধ গিলে ফেলবে। বিএনপি থেকে সাবধান।

বিএনপি’র উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, শান্তিপূর্ণভাবে আসেন। তত্ত্বাবধায়ক ভূত মাথা থেকে নামান। আদালত তত্ত্বাবধায়ক ব্যবস্থা মিউজিয়ামে পাঠিয়েছে। এই তত্ত্বাবধায়ক না হলে নির্বাচনে যাবেন না? যাবেন, যাবেন। গাধা পানি ঘোলা করে খায়। সময় আসলে দেখা যাবে। আপনাদের নেতাটা কে? নেতা কে? মুচলেকা দিয়ে লন্ডনে চলে গেছে কে? ফখরুল সাহেবকে নির্দেশনা দেয় লন্ডন থেকে। যেমনি নাচায় তেমনি নাচে, পুতুলের কি দোষ।

 

 

 

তিনি বলেন, শেখ হাসিনার পরিবারের কারো হাওয়া ভবন নেই। সবাই চাকরি করে, কাজ করে খায়। তারা (বিএনপি) আবারো ভোট চুরি করবে। গণতন্ত্র হরণ করবে। সেজন্য বলছে টেকব্যাক বাংলাদেশ। ২১শে আগস্ট শেখ হাসিনাকে হত্যা করতে চেয়েছে কে? এই বিএনপি। এই খুনীদের সঙ্গে জনগণ নেই। যতো নাচানাচি লাফালাফি করেন, যতোই মনে করেন ক্ষমতায় চলে গেছেন! কাজ হবে না। দলের নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, মনে রাখবেন আওয়ামী লীগ ঐক্যবদ্ধ থাকলে ওরা যতোই সমাবেশ করুক ঐক্যবদ্ধ আওয়ামী লীগকে কেউ হারাতে পারবে না ইনশাআল্লাহ।

 

 

উক্ত সম্মেলনে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় ও জেলাসহ বিভিন্ন পর্যায়ের নেতারা বক্তব্য রাখেন ও উপস্থিত ছিলেন।

 

0Shares

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ