সিলেটে ইত্তেফাকের ৭১তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন

প্রকাশিত: ২:৪৩ পূর্বাহ্ণ, ডিসেম্বর ২৫, ২০২৩

সিলেটে ইত্তেফাকের ৭১তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন

ডায়াল সিলেট ডেস্ক :: সিলেটে দৈনিক ইত্তেফাকের ৭১তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন করা হয়েছে। এ উপলক্ষে রবিবার বিকালে সিলেট প্রেস ক্লাবের ‘আমিনূর রশীদ চৌধূরী মিলায়তনে’ নানা পেশা, রাজনীতিবিদ, লেখক, সাংবাদিকদের উপস্থিতিতে মিলন মেলায় পরিণত হয়।

 

দৈনিক ইত্তেফাকের ব্যুরো চিফ হুমায়ূন রশিদ চৌধুরীর সভাতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড.এ কে আব্দুল মোমেন বলেন, বাংলাদেশ রাষ্ট্রের জন্মের পেছনে একেকটি আন্দোলন পেরিয়ে আসার যে অধ্যায়, তার প্রতিটি পর্যায়ে ইত্তেফাক নিষ্ঠার সঙ্গে দায়িত্ব পালন করেছে। নানা চড়াই-উৎরাই ও কণ্টকাকীর্ণ পথ অতিক্রম করে ইত্তেফাক আজ গণমানুষের মুখপাত্রে পরিণত হয়েছে।

 

তিনি বলেন, সংবাদ মাধ্যম হলো জাতির বিবেক। লেখনির শক্তি কত প্রবল তার নমুনা হচ্ছে ইত্তেফাক। রাষ্ট্র ও স্বাধীকার আন্দোলনে ইত্তেফাকের ভূমিকা ছিল অনেক। রাষ্ট্র ও স্বাধীকার আন্দোলনে ভূমিকা রাখতে গিয়ে দৈনিক ইত্তেফাকের প্রতিষ্ঠাতা সম্পাদক তোফাজ্জল হোসেন মানিক মিয়াকে বার বার জেল কাটতে হয়েছে। অফিসকে বারবার পুড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। আমারা আসা করব আগামী দিনেও ইত্তেফাক জাতিকে সঠিক পথ দেখাবে।

 

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে সিলেট সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী বলেন, ইত্তেফাককের সম্পাদক তোফাজ্জল হোসেন মানিক মিয়া এই পত্রিকাটিকে এই পর্যায়ে নিয়ে আসতে অনেক সংগ্রাম করেছেন। মানিক মিয়া বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর ঘনিষ্ঠ জন ছিলেন। স্বাধীনতা ও স্বাধীকার আন্দোলনে এই পত্রিকাটির ভুমিকা ছিল অনন্য।

 

প্রতিষ্ঠাবার্ষিকিতে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন সিলেট সফররত পুলিশের আইজিপি চৌধুরী আব্দুল্লা আল মামুন, সুনামগঞ্জ-৫ আসনের এমপি মহিবুর রহমান মানিক, শাবিপ্রবি উপাচার্য অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমেদ, সিলেট জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট নাসির উদ্দিন খান, সিসিকের সাবেক মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী, গোয়াইনঘাট উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুল হাকিম চৌধুরী, ব্যারিষ্টার সায়েদুল হক সুমন।

 

দৈনিক ইত্তেফাকের ফটো সাংবাদিক আব্দুল বাতিন ফয়সল’র পরিচালনায় এসময় উপস্থিত ছিলেন, সিলেট মহানগর আওয়ামীলীগ এর সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক মো. জাকির হোসেন, সিলেট প্রেসক্লাব সভাপতি ইকবাল সিদ্দিকী, সিলেট মহানগর আওয়ামিলীগ এর সহ-সভাপতি ফয়জুল আনোয়ার আলাওর, সিলেট জেলা ক্রিড়া সংস্থার সাধরণ সম্পাদক মাহি উদ্দিন আহমদ সেলিম, জেপির সিলেট জেলা সভাপতি ইফতেকার আহমদ লিমন, সিলেট উইমেন্স চেম্বার্স অব কমার্স লিমিেিটড এর সভাপতি স্বর্ণলতা রায়, কৃষিবিদ আবু নাসের, সিলেট মহানগর যুবলীগের সভাপতি আলম খান মুক্তি, দূর্নিতি মুক্তকরণ এর কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক মকসুদ হোসেন ।

 

সাংবাদিকদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, সিলেট প্রেসক্লাব এর সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রশিদ রেনু, আব্দুল মালিক জাকা, সিনিয়র সাংবাদিক আব্দুর রাজ্জাক, মো. আমজাদ হোসাইন, এনামুল হক জুবের, সেলিম আউয়াল, কামকামুর রাজ্জাক রুনু, খালেদ আহমদ, সিরাজুল ইসলাম, ফারুক আহমদ, খালেদ আহমদ, আব্দুল হান্নান, শেখ আসরাফুল আলম নাসির, আফতাব উদ্দিন, শফিক আহমদ শফি, মো. আমিরুল ইসলাম চৌধুরী, মো. মুহিবুর রহমান, মো. শাহিদুল ইসলাম, পররাষ্ট্রমন্ত্রীর ব্যক্তিগত কর্মকর্র্তা শফিউল আলম জুয়েল ও সোহাগ আহমদ ওয়েস, আলী হোসেন, সাগর শুভ্র, আব্দুল মুহিত দিদার, ইউনুস চৌধুরী, দিগেন সিংহ , রবি সিংহ রাজেশ, আব্দুল কাদির ইমন, মো. জাকির হোসেন, বঙ্গবন্ধু ফাউন্ডেশন সিলেট মহানগর সাধারণ সম্পাদক বদরুল ইসলাম লস্কর রাজু, এস. ডি. সুমেল, প্রীতেষ তালুকদার, শাহীন আহমদ, আকমাম আব্দুল্লা, ফয়সাল আলম, মাসুদ আহমেদ, মো. জসিম উদ্দিন, , জাবেদ ইমরান, এমএ হান্নান, সেলিম আওয়াল, ফয়জুল আনোয়ার,আতিকুর রহমান, টুরিস্ট পুলিসের সিলেট জেলা ইনচার্জ মো. হাবিবুর রহমান , মাসুদ আহমদ, ভোরের খাগজের প্রতিনিধি খালেদ আহমদ, শাহীন আহমদ, জসিম উদ্দিন।

 

0Shares