অস্কারে ইতিহাস গড়ল ‘প্যারাসাইট’

প্রকাশিত: ৬:৪২ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১০, ২০২০

ডায়ালসিলেট ডেস্ক:::      অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ডসের ৯২তম আসরে সেরা মৌলিক চিত্রনাট্য বিভাগে পুরস্কার ছিনিয়ে ইতিহাস গড়ল দক্ষিণ কোরিয়ার ছবি ‘প্যারাসাইট’। এই প্রথম ইংরেজির বাইরে অন্য কোনো ভাষার সিনেমা সেরা চলচ্চিত্রের অস্কার পুরস্কার পেল। ছবিটি যৌথভাবে লিখেছেন বঙ জুন-হো ও হান জিন ওয়ান। এবারই প্রথম অস্কার জিতলেন তারা। অভিনেত্রী ডায়েন কিটন ও অভিনেতা কিয়ানু রিভস তাদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন। প্যারাসাইট ছবির পরিচালক বং জুন হো সেরা নির্মাতার পুরস্কারও পেয়েছেন।

লস অ্যাঞ্জেলেসের ডলবি থিয়েটারে ৯ ফেব্রুয়ারি রাত আটটায় (বাংলাদেশ সময় ১০ ফেব্রুয়ারি সকাল ৭টা) শুরু হয়েছে অস্কারের পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান। যুক্তরাষ্ট্রের লসঅ্যাঞ্জেলেসের ডলবি থিয়েটারে অনুষ্ঠিত জমকালো আসরে দুটি পুরস্কার নিয়ে ইতিহাসে নাম লেখালেন বং জুন হো।

২০০৩ সালে ‘টক টু হার’ চলচ্চিত্রের পর এবারই প্রথম বিদেশি কোনো চলচ্চিত্রকে ‘মৌলিক চিত্রনাট্য’ বিভাগে পুরস্কার দিল অস্কার। পুরস্কারটি হাতে নিয়ে নির্মাতা বললেন, ‘এই প্রাপ্তি আমার জন্য সম্মানের। ধন্যবাদ অস্কার’।

কোয়ান্টিন টারান্টিনোর বহুল আলোচিত ছবি ‘ওয়ান্স আপন অ্যা টাইম ইন হলিউড’র সাথে বং জন হু’র আলোচিত প্যারাসাইট ছবিটিকে প্রতিযোগিতা করতে হয়েছে ।অনেকেই ভেবেছিলেন গত বছরের আলোচিত সিনেমা টড ফিলিপসের জোকার সেরা চলচ্চিত্রের পুরস্কার জিতে নেবে।আর সেই জোকারকেই পেছনে ফেলে সেরা চলচ্চিত্রের পুরস্কার লুফে নেয় প্যারাসাইট।

তবে অনবদ্য অভিনয়ের জন্য জোকারের অভিনেতা জোয়াকিন ফিনিক্স সেরা অভিনেতার পুরস্কার জিতে নিয়েছেন।

মার্কিন অভিনেত্রী রেনে জেলেগার সেরা অভিনেত্রীর পুরস্কার জিতে নিয়েছেন প্রয়াত মার্কিন অভিনেত্রী ও গায়িকা জুডি গারল্যান্ডের বায়োপিক ‘জুডি’ তে কেন্দ্রীয় চরিত্রে অনবদ্য অভিনয় করে।

ছবিতে দেখানো হয়, সিউলের দরিদ্র কিম পরিবারের চার সদস্যের জীবন ঘিরে প্যারাসাইট সিনেমার কাহিনী আবর্তিত। এ চার দরিদ্র পরিচয় গোপন করে মিথ্যা তথ্য দিয়ে এক ধনী পরিবারে কাজ নেয়। ব্ল্যাক কমেডির ছাঁচে ফেলে শ্রেণি বৈষম্যের কাহিনী ফুটে উঠে ছবিতে।

পুরস্কার পাওয়ার পর উচ্ছ্বসিত কণ্ঠে পরিচালক বং জুন হো বলেন, তার কাছে মনে হচ্ছে, ঘুম ভেঙে গেলে হয়ত দেখবেন এটা আসলে স্বপ্ন ছিল। সব কিছু খুব অদ্ভুত লাগছে তার কাছে। তিনি ভেবে ছিলেন সেরা আন্তর্জাতিক ফিচার ফিল্মের পুরস্কারটা পাওয়ার পর আজ রাতের মতো বোধ হয় তার কাজ শেষ। কিন্তু সেরা চলচ্চিত্র পুরস্কার পেয়ে মনে হচ্ছে সকাল অবধি তিনি আনন্দ করবেন।

আর অস্কার হাতে নিয়ে সিনেমার প্রযোজক কোয়াক সিন-আয়ে বলেন, তিনি ভাষা হারিয়ে ফেলেছেন। কখনও ভাবেননি যে এটা ঘটতে পারে। তার মনে হচ্ছে, ইতিহসের খুবই সৌভাগ্যের একটি মুহূর্ত তিনি দেখছেন।

অস্কারে সেরা চলচ্চিত্রে এবার মনোনয়নের তালিকায় আরও ছিল ফোর্ড ভার্সেস ফেরারি, দ্য আইরিশম্যান, জোজো র‍্যাবিট, জোকার, লিটল উইমেন, ম্যারেজ স্টোরি, ওয়ানস আপন আ টাইম ইন হলিউড এবং ১৯১৭।

এর মধ্যে স্যার স্যাম মেন্ডিসের ১৯১৭ সবচেয়ে বেশি আলোচনায় থাকা সিনেমাটি টেকনিক্যাল ক্যাটাগরিতে তিনটি পুরস্কার পেলেও বড় কোনো অস্কার জিততে পারেনি।

0Shares