আসছেন না ভেট্টরি, নিউজিল্যান্ড সফরেই বিদায়!

dial dial

sylhet

প্রকাশিত: ৯:৩৫ পূর্বাহ্ণ, ডিসেম্বর ২৮, ২০২০

স্পোর্টস ডেস্ক::প্রায় ১১ মাস পর ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফিরবে বাংলাদেশ দল। সবকিছু ঠিক থাকলে ৩ ম্যাচ সিরিজের প্রথম ওয়ানডে মাঠে গড়াবে আগামী বছর ২০শে জানুয়ারি। এরপর সিরিজের প্রথম টেস্ট ৩রা ফেব্রুয়ারি চট্টগ্রামে। তবে করোনা বিরতি ভেঙে টাইগারদের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফেরার মিশনে থাকছেন না দলের স্পিন বোলিং কোচ ড্যানিয়েল ভেট্টরি। অন্যদিকে জানা গেছে তার নিজ দেশ নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজে মার্চে তিনি টাইগারদের সঙ্গে যোগ দেবেন। আর সেটিই হতে পারে টাইগারদের সঙ্গে তার শেষ কাজ। ১০০ দিনের চুক্তি শেষ হলে আর তা নবায়ন হবে না এমনটাই জানা গেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বার্ডের (বিসিবি) কয়েকটি সূত্রে। তবে চুক্তি নবায়ন হবে কিনা সেটি এখনো নিশ্চিত না করলেও আপাতত জানুয়ারিতে ভেট্টরি ঢাকায় আসবেন না এমনটাই জানিয়েছেন বিসিবি’র ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগের চেয়ারম্যান আকরাম খান বলেন, ‘বিশ্বের করোনা পরিস্থিতির এখনো তেমন উন্নতি হয়নি। বিশেষ করে ইউরোপ জুড়ে এর প্রভাব বেড়েছে। বাংলাদেশও ঝুঁকির মধ্যে। সবকিছু বিবেচনায় ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সিরিজে দলের সঙ্গে যোগ দিতে পারছেন না ভেট্টরি। আমাদের এই বিশেষজ্ঞ বোলিং কোচ বর্তমানে নিজ দেশে আছেন। আমরা মার্চেই নিউজিল্যান্ড সফরে যাবো। সেখানে তিনি দলের সঙ্গে কাজ করবেন। এরপর তার সঙ্গে আমরা চুক্তি নবায়ন করবো কিনা সেটি এখনো সিদ্ধান্ত নেয়া হয়নি। যদি সব ঠিক থাকে হয়তো চুক্তি আবার হতে পারে।’
২০১৯ এর জুলাইয়ে টাইগারদের বিশেষজ্ঞ স্পিন বোলিং কোচ হিসেবে ড্যানিয়েল ভেট্টরির নাম ঘোষণা করে বিসিবি। ১০০ দিন কাজ করার চুক্তিতে গেল বছর ২৬ অক্টোবর ঢাকায় পা রেখেছিলেন নিউজিল্যান্ডের এ তারকা স্পিনার। নভেম্বরে ভারত সফরে গিয়েছিলেন টাইগারদের সঙ্গে। তবে এই বছর তিনি বাংলাদেশ দলের সঙ্গে পাকিস্তান সফরে না গেলেও কাজ করেছেন জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সিরিজে। মার্চে সিরিজ শেষ হলে নিজ দেশে পাড়ি জমান এই কোচ। এরপর করোনা মহামারি বিশ্বজুড়ে ছড়িয়ে পড়ায় আর বাংলাদেশে আসা হয়নি। এবার বাকি সব বিদেশি কোচ জানুয়ারিতে ক্যারিবীয়দের বিপক্ষে সিরিজের আগে দলের সঙ্গে যোগ দিলেও তিনি আসছেন না। কোভিড-১৯ ভাইরাস মোকাবিলায় বিশ্বের সফল দেশের একটি নিউজিল্যান্ড। সেখানে সরকারের কঠিন কোয়ারেন্টিন নীতি প্রতিটি নাগরিককে মানতেই হয়। যদি ভেট্টরি বাংলাদেশ সফরে আসনে। তাহলে তিনি যখন সফর শেষ করে দেশে ফিরে যাবেন। তাকে সেখানে থাকতে হবে ১৪ দিনের বাধ্যতামূলত কোয়ারেন্টিনে। তাও সেটি বাসা নয়, নির্দিষ্ট কোনো হাসপাতালে। এমনটি হলে তার মার্চে বাংলাদেশ দলের সঙ্গে কাজ করাও কঠিন হবে। যে কারণে তিনি এখন ঢাকায় আসছেন না বলেই জানা গেছে।
এই বছর অক্টোবর পর্যন্ত ভেট্টরির সঙ্গে বিসিবির ১০০ দিনের চুক্তি শেষ হওয়ার কথা ছিল। অস্ট্রেলিয়াতে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ শেষ করেই তিনি বাংলাদেশকে বিদায় বলতেন। কিন্তু করোনার কারণে বিশ্বকাপ আয়োজন স্থগিত হয়ে যায়। মূলত ৬০ দিন তিনি টাইগারদের সঙ্গে কাজ করেছেন। বিসিবির একটি সূত্র জানায়, ‘যতটা শুনেছি বিশ্বের এমন পরিস্থিতিতে পারিবারিক কারণে আর তিনি বাংলাদেশের সঙ্গে চুক্তির মেয়াদ বাড়াবেন না। কারণে করোনা পরিস্থিতি কবে স্বাভাবিক হবে তা এখনো অজানা।’ অন্যদিকে আকরাম খানও তার চুক্তির মেয়াদ বাড়ানোর বিষয়ে পরিষ্কার কিছু বলতে পারেননি। তিনি বলেন, ‘এখনই বলা কঠিন। আমাদের তো বিশ্বের বর্তমান পরিস্থিতিও চিন্তা করতে হবে। তবে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সফরে তিনি কাজ করবেন। এরপর আমরা তার সঙ্গে নতুন করে আলোচনা করবো। তিনি যদি থাকেন থাকবেন।’ হাইপ্রোফাইল এই স্পিন কোচের পেছনে বিসিবির দিনপ্রতি ব্যয় হচ্ছে (কর কর্তনের পর) ২ লাখ টাকারও বেশি।

0Shares