মোদি-‌শাহ বলেছিলেন ডবল ইঞ্জিন আর আমরাই ডাবল সেঞ্চুরী করলাম – মমতা ব্যানার্জী

প্রকাশিত: ১২:৩৬ পূর্বাহ্ণ, মে ৩, ২০২১

আন্তর্জাতিক ডেস্ক ::

তৃতীয়বারের জন্য ক্ষমতায় এলন তৃণমূল কংগ্রেস। শেষ খবর পাওয়া পযন্ত ২১৯ আসনে এগিয়ে তৃণমূল। বিজেপির কোনওভাবেই প্রভাব ফেলতে পারল না ব্যালটে। আসন সংখ্যা বাড়ার প্রবণতা তো রয়েছেই। তার সঙ্গে বেড়েছে ভোটের শতাংশও।

তৃতীয়বারের জন্য ক্ষমতায় আসার প্রবণতা বেলার থেকে স্পষ্ট হলেও কিছুটা সময় নিয়েই বিকেলে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হলেন মমতা ব্যানার্জি। প্রথমেই, রাজ্যবাসীকে কৃতজ্ঞতা জানালেন।
এদিকে, প্রথমে খবর আসে নন্দীগ্রাম আসনে ১২০০ ভোটের ব্যবধানে জয় পেয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে সেই খবর সম্প্রচারিতও হয়। ঠিক সন্ধ্যা দিকে েএর বিপরীত খবর আসে নন্দীগ্রাম আসনে জয় পেয়েছেন বিজেপি প্রার্থী শুভেন্দু অধিকারী। জানা যায়, প্রায় ২ হাজার ভোটের ব্যবধানে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে পরাজিত করে জয়লাভ করেন তিনি। পরে সন্ধ্যা নাগাদ এই খবর সামনে আসতেই কারচুপির অভিযোগ তুলে ধরেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

মমতা বলেছিলেন ২২১ আসন জিতব বলে দাবি করেছিলাম। মোদি-‌শাহ বলেছিলেন ডবল ইঞ্জিন সরকার। কিন্তু আমরাই ডবল সেঞ্চুরি করলাম। বিজেপি টাকা ছড়িয়েও কিছু করতে পারল না।
তবে তৃণমূলের এই আশাতীত ফলে তিনি যে খুশি তার চোখে মুখেই তা স্পষ্ট। তিনি বলেন, ‘‌কাজ শুরু এখন থেকেই’‌। রবিবার এক সাংবাদিক সম্মেলনের মাধ্যমে মন্তব্য তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের।

এদিকে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ থেকে জেপি নাড্ডা, দিনের পর দিন বাংলায় হাজারও চেষ্টা চালিয়ে গেলেও তারা মানুষের মন জয় করতে পারেননি। দেশের একমাত্র মহিলা ‘মুখ্যমন্ত্রী’র গদি ঠিক কতখানি শক্তপোক্ত, তা হয়তো আন্দাজই করতে পারেনি বিরোধীরা।
অন্যদিকে সাংবাদিকদের সাথে সংবাদ সম্মেলনে করোনা পরিস্থিতি নিয়ে রীতিমতো উদ্বেগ প্রকাশ করেন মমতা ব্যানার্জী। এখন প্রথম কাজ কোভিড পরিস্থিতির মোকাবিলার জন্য উদ্যোগ গ্রহন করা। এই আবহে কোনও বিজয় মিছিল হবে না বলেও জানান তৃণমূল নেত্রী। বরং পরিস্থিতির উন্নতির পর বিজয় উৎসব হবে বলে জানান তৃণমূল নেত্রী। তিনি বলেন, কেন্দ্রের কাছে ভ্যাকসিন চাইবেন তিনি। তারই সঙ্গে কেন্দ্রের কাছে বিনামূল্যে টিকাকরণের আর্জি জানাবেন বলেও জানিয়েছেন তিনি। নাহলে হুঁশিয়ারি দেন, ফের তিনি গান্ধীমুর্তির পাদদেশে অহিংস আন্দোলন করবেন।

0Shares