আজমিরীগঞ্জে জাল টাকাসহ আটক ৩

dial dial

sylhet

প্রকাশিত: ১০:৩৩ অপরাহ্ণ, জুন ২১, ২০২১

ডায়ালসিলেট ডেস্ক:: হবিগঞ্জের আজমিরীগঞ্জের পশুর হাটে ১৫ হাজার টাকার জাল নোট জড়িত ক্রেতা বিক্রেতাসহ ৩ জনকে আটক করেছে পুলিশ।

এ সময় আঙ্গুর মিয়া নামে আটক এক গরু ব্যবসায়ীকে ছাড়তে আঙ্গুর মিয়ার চাচাতো ভাই বানিয়াচং উপজেলার গরু ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি ইসরাইল মিয়ার কাছে  ১ লক্ষ টাকা উৎকোচ দাবী করার অভিযোগ উঠেছে আজমিরীগঞ্জ থানার এ এস আই মনিরের বিরুদ্ধে।
আটককৃতরা হলেন, বানিয়াচং উপজেলার গরু ব্যবসায়ী আঙ্গুর মিয়া(৫০) একই উপজেলার গরু ব্যাবসায়ীর সহযোগী টেনু মিয়া() এবং গরু ক্রেতা আজমিরীগঞ্জ উপজেলার শিবপাশা গ্রামের বাসিন্দা  বাছির মিয়া (৪৫)।  জানা যায়,
রবিবার  দুপুর ১ টায় উপজেলার শিবপাশা ইউনিয়নের বাছির মিয়া গরু কেনার জন্য আজমিরীগঞ্জ গরু বাজারে আসেন।  এ সময় তিনি বিক্রেতা আঙ্গুর মিয়ার নিকট থেকে  একটি গাভী ২৬ হাজার টাকা মুল্য নির্ধারণ করে ক্রয় করেন। এ সময় ক্রেতা  বাছির মিয়া ২৬ হাজার টাকা বিক্রেতা আঙ্গুর মিয়ার সহযোগী টেনু মিয়ার নিকট প্রদান করে গরু নিয়ে বাড়ির পথে রওনা দেন।
এ সময় বিক্রেতা আঙ্গুর মিয়া টাকা হাতে নিয়ে দেখেন ২৬ হাজার টাকার মধ্যে ১৫ হাজার টাকার জাল নোট রয়েছে। এ সময় আঙ্গুর মিয়া দ্রুত অন্যান্য ব্যবসায়ীদের নিকট জানালে অন্য ব্যবসায়ীরা ক্রেতা বাছির মিয়াকে গরু বাজার সংলগ্ন এলাকা থেকে গরু বাজারে নিয়ে আসেন।
খবর পেয়ে আজমিরীগঞ্জ থানার এএসআই মনির পশুর হাটে এসে ক্রেতা বাছির মিয়া  বিক্রেতা আঙ্গুর মিয়া ও বিক্রেতার সহযোগী টেনু মিয়াকে আজমিরীগঞ্জ থানায় নিয়ে আসেন।
এ সময় গরু বিক্রেতা আঙ্গুর মিয়ার চাচাতো ভাই বানিয়াচং উপজেলার গরু ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি ইসরাইল মিয়া থানায় গেলে আঙ্গুর মিয়াকে থানা থেকে ছাড়তে  ইসরাইল মিয়ার নিকট  ১ লক্ষ টাকা উৎকোচ দাবী করেন এ এস আই মনির। উৎকোচের বিষয়টি স্থানীয় সাংবাদিকদের অবগত করেন  ইসরাইল মিয়া। যার যথাযথ ডকুমেন্টস স্হানীয় সাংবাদিকদের কাছে রয়েছে।
এ বিষয়ে আজমিরীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি)  নুরুল ইসলাম জানান, তিনজনকে জিজ্ঞাসাবাদ চলছে। উৎকোচ দাবির ব্যাপারে তিনি বলেন,আসামী ছাড়ার এখতিয়ার এএসআই মনিরের নেই, যদি এ এস আই মনির এমন কিছু করে থাকেন তাহলে তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এম/

0Shares