আশার আলো দেখাচ্ছে নতুন এক গবেষণা

dial dial

sylhet

প্রকাশিত: ৩:৫৯ অপরাহ্ণ, জুন ২৬, ২০২১

ডায়ালসিলেট ডেস্ক: গোটা বিশ্ব অতিসংক্রামক ডেলটা বা ভারতীয় ধরনের ভয়ে কাঁপছে। এর মধ্যেই নতুন এক গবেষণা আশার আলো দেখাচ্ছে।

“শক্তির শীর্ষে পৌঁছেছে করোনাভাইরাস। নিজের অস্ত্রে আর শান দেওয়ার ক্ষমতা নেই তার। প্রলয় ঘটিয়ে ভাইরাসটি এবার ক্লান্ত”, বলা হয়েছে বিশ্বখ্যাত ‘নেচার’ পত্রিকায় প্রকাশিত একটি গবেষণাপত্রে।

নভেল করোনাভাইরাস বা সার্স-কোভ-২ গত দেড় বছরে ক্রমাগত মিউটেশন ঘটিয়েছে। ডেলটা, আলফা, বিটা, গামা, একাধিক ধরন তৈরি করেছে ভাইরাসটি। সম্প্রতি ল্যাম্বডা ধরনের সন্ধান মিলেছে পেরুতে। এর মধ্যে সবচেয়ে শক্তিশালী ডেলটা। এর বেশি আর শক্তি বাড়াতে পারবে না ভাইরাস, বলে দাবি বিজ্ঞানীদের।

বিজ্ঞানীরা বলছেন, গত দেড় বছরে সার্স-কোভ-২ তার ‘তলোয়ার’ বা স্পাইক প্রোটিনের সজ্জাবিন্যাস ও গঠন ক্রমাগত বদলেছে এবং নতুন মিউটেটেড ধরন তৈরি করেছে। এভাবেই মানবদেহের রোগ প্রতিরোধ ব্যবস্থাকে লাগাতার ধোঁকা দিয়েছে সে।

‘সব ধরনের মধ্যে ডেলটাই সবচেয়ে শক্তিশালী’ বলেন এই গবেষণাপত্রটির সঙ্গে যুক্ত অন্যতম বিজ্ঞানী আমেরিকার স্ক্রিপস রিসার্চ ট্রান্সলেশনাল ইনস্টিটিউটের কর্মকর্তা এরিক টোপল । বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাও এ বিষয়ে সমর্থন জানিয়েছে । এখানেই এর শেষ বলে মনে করছেন বিজ্ঞানীরা।
ডি.এস/সাবিহা

 

0Shares