ভুটানের বিপক্ষে বড় জয়ই চায় বাংলাদেশ

প্রকাশিত: ৯:৩৩ পূর্বাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ৭, ২০২৩

ভুটানের বিপক্ষে বড় জয়ই চায় বাংলাদেশ

স্পোটর্ ডেস্ক;:সাফ অনূর্ধ্ব-২০ চ্যাম্পিয়নশিপ দুঃস্বপ্নের মতোই ভুটানের কাছে। দুই ম্যাচে ১৬ গোল হজম করে বিদায় নিশ্চিত হয়েছে তাদের। উপরন্তু কমলাপুরের মানহীন টার্ফে খেলে ভুটানের গুরুত্বপূর্ণ চার ফুটবলার এখন ইনজুরিতে । ভারত এবং নেপালের কাছে বিধ্বস্ত হওয়া দলটির বিপক্ষে নিঃসন্দেহে আজ ফেভারিট বাংলাদেশ। নেপালের বিপক্ষে জয় এবং ভারতের সঙ্গে ড্রয়ে টুর্নামেন্টের ফাইনালে ওঠার শেষ সিড়িতে শামসুন্নাহার, রুপনা চাকমারা। কমলাপুর স্টেডিয়ামে মঙ্গলবার ভুটানের সঙ্গে এক পয়েন্ট পেলেই শিরোপা মঞ্চে পা রাখবে গোলাম রব্বানী ছোটনের দল। তবে ড্র নয়, প্রতিপক্ষকে গোল বন্যায় ভাসিয়ে ফাইনালের প্রস্তুতি সারতে চায় লাল সবুজের মেয়েরা। কমলাপুর বীরশ্রেষ্ঠ শহীদ সিপাহি মোস্তফা কামাল স্টেডিয়ামে ম্যাচটি শুরু হবে সন্ধ্যা ৭টায়। তার আগে বিকাল ৩টায় ফাইনালে ওঠার লড়াইয়ে মুখোমুখি হবে ভারত ও নেপাল। এই ম্যাচে যে জিতবে তারাই পাআর ড্র হলে গোল পার্থক্যে এগিয়ে থাকায় ভারত চলে যাবে শিরোপার লড়াইয়ে। মেয়েদের বয়সভিত্তিক সব টুর্নামেন্টে ভুটানকে হারানোর সুখস্মৃতি রয়েছে বাংলাদেশের। এবারের আসরে ভারতের কাছে ১২-০ গোলে হেরেছে ভুটান। স্বাগতিকদের ফাইনালে ওঠার সমীকরণ ড্র হলেও, ভুটানকে হারানোর প্রত্যয় আফিদা, আকলিমাদের। শুধু জয় নয়, ভারতের মতো এই প্রতিপক্ষকে বড় ব্যবধানে হারানোর আশা। কোচ গোলাম রব্বানীও আত্মবিশ্বাসী। সফল এই কোচ বলেন, ‘আমার কাছে সব দলই সমান শক্তিশালী। যেহেতু ভুটান আগের দুই ম্যাচে বড় ব্যবধানে হেরেছে, তাই আমরাও চাইবো বড় জয়। তাই বলে আত্মতুষ্টিতে ভুগছি না। কারণ ফুটবলে জিততে হলে ৯০ মিনিট পর্যন্ত এক দম নিয়ে খেলতে হবে।’ ভারতের বিপক্ষে মধ্যমাঠ এবং আক্রমণভাগে এলোমেলো ছিলেন মেয়েরা। গোলকিপার রুপনা অবিশ্বাস্য কয়েকটি সেভ না করলে গোলশূন্য ড্রয়ের পরিবর্তে হার নিয়ে মাঠ ছাড়তে হতো বাংলাদেশকে। তাই ভুটান ম্যাচের আগে কোচের বড় দুশ্চিন্তা ফরোয়ার্ড লাইন নিয়ে। কোচ ছোটন বলেন, ‘আক্রমণভাগে আরেকটু গোছালো ফুটবল খেলতে হবে। আশা করি ভুটানের বিপক্ষে ফরোয়ার্ডরা তাদের সেরাটা মেলে ধরবে।’ ভুটান কোচ কারমা দেমা বাংলাদেশকে শিরোপার অন্যতম দাবিদার বলে দিয়েছেন। টার্ফে খেলে চার ফুটবলার চোটে পড়ায় ম্যাচের চেয়ে খেলোয়াড়দের নিয়েই বেশি ভাবতে হচ্ছে তাকে। ভুটানের কোচ বলেন, ‘টুর্নামেন্ট তো শেষ আমাদের। ভয়ংকর একটা অভিজ্ঞতা হয়েছে। মানহীন টার্ফে খেলে আমার চার ফুটবলারের সাফ শেষ। প্রতিপক্ষ বাংলাদেশ অনেক শক্তিশালী। তাদের সঙ্গে ভালো খেলার চেষ্টা করবো আমরা।’

ডায়ালসিলেট এম/

0Shares

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ